1. support@renexlimited.com : Renex Ltd : Renex Ltd
  2. nirobislamrasel@gmail.com : Shuvo Khan : Shuvo Khan
বুধবার, ০১ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৫:৪৭ পূর্বাহ্ন

নির্বাচনকে কেন্দ্র করে শিহান হত্যা মামলার প্রধান আসামি শরিফক গ্রেফতার র‌্যাব-৪

নিজস্ব সংবাদদাতা
  • বুধবার, ২৪ নভেম্বর, ২০২১

ঢাকার ধামরাইয়ে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনকে কেন্দ্র করে সংঘটিত শিহান (২১) হত্যা মামলার প্রধান ও পলাতক আসামি শরিফুল ইসলাম শরিফ (২৯) কে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব-৪ এর একটি আভিযানিক দল।

বুধবার (২৪ নভেম্বর) দুপুর ১টার দিকে প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে বিষয়টি নিশ্চিত করেন র‌্যাব-৪, সিপিসি-২ এর কোম্পানি কমান্ডার লেফটেন্যান্ট কমান্ডার রাকিব মাহমুদ খাঁন।
র‌্যাব জানায়, গত ৩১ অক্টোবর রাতে ধামরাইয়ের যাদবপুর এলাকায় সিহান হোসেনকে কতিপয় দুষ্কৃতকারী পূর্বপরিকল্পিতভাবে মোবাইলে কল করে একটি পরিত্যক্ত বাড়িতে আসতে বলে। উক্ত স্থানে দুষ্কৃতকারীরা বাঁশের লাঠি, লোহার রড়, দা ছ্যানা, রামদা চাপাতী ইত্যাদি মারাত্মক দেশীয় অস্ত্র সস্ত্রে সজ্জিত হয়ে পূর্ব থেকেই অবস্থান করছিল। ভিকটিম সিহান তার সহযোগী আলমগীর ও রুবেল উক্ত বাড়িতে পৌছালে আসামীরা এলোপাথাড়ীভাবে বাশের লাঠি ও লোহার রড দিয়ে পিটাইয়া শরীরের বিভিন্ন স্থানে মারাত্মকভাবে জখম করে পালিয়ে যায়। পরবর্তীতে তাদেরকে উদ্ধার করে রাজধানীর আগারগাঁও পঙ্গু হাসপাতালে নিয়ে ভর্তি করা হলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় গত ১ নভেম্বর সিহান মারা যায়। পরবর্তীতে ভিকটিমের মা বাদী হয়ে ধামরাই থানায় ১ টি হত্যা মামলা দায়ের করেন। হত্যার পরপরই আসামীরা গ্রেফতার এড়াতে আত্মগোপনে চলে যায়। র‌্যাব-৪ আসামীদের গ্রেফতারে গোয়েন্দা নজরদারী বৃদ্ধি করে।

এরআগে, মঙ্গলবার (২৩ নভেম্বর) সাড়ে ৫ টার দিকে ধামরাই থানাধীন বাইচাল এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতার শরিফুল ইসলাম শরিফ (২৯) ঢাকার ধামরাইয়ের বাসিন্দা বলে জানা যায়।

র‌্যাব আরও জানায়, গোয়েন্দা অনুসন্ধানে জানা যায় যে, উক্ত হত্যার সাথে জড়িত কয়েকজন আসামী ঢাকা জেলার ধামরাই এলাকায় আত্মগোপনে রয়েছে। পরে মঙ্গলবার সাড়ে ৫টার দিকে ধামরাইয়ের বাইচাল এলাকায় সাঁড়াশি অভিযান পরিচালনা করে সিহান হত্যার সাথে জড়িত শরিফুল ইসলাম শরিফ (২৯) কে গ্রেফতার করা হয়।

র‌্যাব-৪, সিপিসি-২ এর কোম্পানি কমান্ডার লেফটেন্যান্ট কমান্ডার রাকিব মাহমুদ খাঁন জানান, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে গ্রফতারকৃত আসামী উক্ত হত্যার সাথে সরাসরি জড়িত বলে স্বীকারোক্তি প্রদান করেছে। গ্রেফতারকৃত আসামী ও ভিকটিম পূর্ব পরিচিত এবং লেবুর ব্যবসার সাথে জড়িত। ইউপি নির্বাচনে তারা পরস্পর প্রতিপক্ষের কর্মী হওয়ায় বিরোধের জেরে এই হত্যাকান্ড সংঘঠিত হয়েছে বলে জানা যায়।

গ্রেফতারকৃত আসামীদেরকে ধামরাই থানায় হস্তান্তর কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন। হত্যার সাথে জড়িত অন্যান্য আসামীদের গ্রেফতারে র‌্যাবের অভিযান চলমান রয়েছে বলেও জানান তিনি।

আরও পড়ুন...
স্বত্ব © ২০২৩ প্রিয়দেশ
Theme Customized BY LatestNews
%d bloggers like this: