সড়ক যখন মৃত্যুপুরী : অথচ সকলেই স্বাভাবিক মৃত্যুর নিশ্চয়তা চায়। কাইছার উদ্দিন আরিফ


চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়ক লোহাগাড়া অংশের আধুনগর থেকে চুনতি পর্যন্ত প্রতিনিয়ত দূর্ঘটনা ঘটে। উক্ত অংশের সড়কে ৪-৫টি জোনে কখন কার প্রাণ  কাড়ে , কে হবে পঙ্গু তার কোনো ইয়ত্তা নেই।  এই চিহ্নিত জোনে নেই কোন সতর্কমূলক ব্যবস্থা, দূর্ঘটনা প্রতিরোধে নেই কোন পদক্ষেপ।

তাছাড়া সড়কের উক্ত অংশে কোন হাসপাতাল না থাকায় যখন দূর্ঘটনা ঘঠে তখন কোন আহত ব্যক্তিকে চিকিৎসা দেওয়া যায় না। তৎক্ষণিক চিকৎসার অভাবেও অনেক আহত লোক মারা যায়।

-এসব দূর্ঘটনা যেমন প্রশাসনের সামনেই ঘটছে, তেমনি জনপ্রতিনিধি ও সড়ক সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের সামনেই ঘটছে।
কিন্তু পরিতাপের বিষয় হলেও সত্য যে, সড়কের উক্ত অংশে দূর্ঘটনা প্রতিকারের কোন ব্যবস্থা নেই। অথচ সবাই স্বাভাবিক মৃত্যুর গ্যারান্টি চায়। অবিলম্বে মৃত্যুপুরী সড়কের অংশ সমূহে সড়ক দূর্ঘটনা প্রতিরোধে যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষে সু-দৃষ্টি কামনা করছি।

No comments